মার্কেটে চুরি করতে গিয়ে হত্যা, ক্লুলেস মামলার রহস্য উদঘাটন

দোকানে চুরি করতে বাঁধা দেয়ায় রাজধানীর চকবাজার ফেন্সি মার্কেটের নিরাপত্তা প্রহরী আলাউদ্দিনকে ছুরিকাঘাত ও শ্বাসরোধে হত্যা করে একই মার্কেটের শ্রমিক জাহাঙ্গীর। ক্লুলেস হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন করেছে লালবাগ থানা পুলিশ। যাত্রাবাড়ীর কুতুবখালী এলাকা থেকে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সিসিটিভি ফুটেজে ৯ জুন সন্ধ্যা ৭টায় পুরান ঢাকার ফেন্সি মার্কেটে জাহাঙ্গীরকে ঢুকতে দেখা যায়। কয়েক ঘণ্টা পর দ্রুতপায়ে বের হতে দেখা যায় তাকে।

নিরাপত্তা প্রহরী আলাউদ্দিন ও শ্রমিক জাহাঙ্গীর একই মার্কেটে কাজ করতেন। পুলিশ জানায়, কিছুদিন আগেই একটি দোকানের ক্যাশবাক্স লুটের ফন্দি আঁটে জাহাঙ্গীর। ওইদিন রাত একটার দিকে দোকানটিতে ঢুকতে গেলেই বাঁধা দেন নিরাপত্তাকর্মী। এসময় প্রথমে ছুরিকাঘাত, পরে গামছা দিয়ে তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করে সে।

লালবাগ বিভাগ উপ-পুলিশ কমিশনার জসিম মোল্লা জানান, ক্ষোভ থেকে সে কেরানীগঞ্জ থেকে ছুরি এবং কাটার কিনে। সে যেহেতু এই মার্কেটে পরিচিত তাই তার মার্কেটে প্রবেশেও কোন সমস্যা হয়নি। 

এ ঘটনায় জাহাঙ্গীরের মার্কেটে ঢোকা ও বেরোনোর ফুটেজ দেখে সন্দেহ হয় পুলিশের। রোববার রাজধানীর যাত্রাবাড়ী কুতুবখালী এলাকায় অভিযান চালিয়ে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

পুলিশের ওই কর্মকর্তা জানান, হত্যার বিভিন্ন দিক বিশ্লেষণ করেই জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর যে ছুরি দিয়ে সে হত্যা করেছে ওই ছুরিও উদ্ধার করা হয়েছে বলেও জানান জসিম মোল্লা।

এ ঘটনায় অন্য কেউ জড়িত কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। 

পাঠকের মন্তব্য