ব্রাজিল ও স্পেনকে ছুঁয়ে ফেলল ইতালি

ইউরো শিরোপা জয়ের পর প্রথমবারের মতো মাঠে রবার্তো মানচিনির ইতালি। ফ্লোরেন্সে ইতিহাসের হাতছানি আজ্জুরিদের। ব্রাজিল ও স্পেনের টানা ৩৫ ম্যাচ অপরাজিত থাকার রেকর্ড স্পর্শের সুযোগ ইউরোর বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের।
 
প্রতিপক্ষ বুলগেরিয়া। যে দলটার সঙ্গে র‌্যাঙ্কিংয়ে ব্যবধান ৭০। তারপরও কোনো ঝুঁকি নেননি কোচ মানচিনি। ইউরো ফাইনাল খেলা একাদশের ৯ জনকেই নামালেন বুলগেরিয়ার বিপক্ষে।
 
‘সি’ গ্রুপের ম্যাচে ইউরো চ্যাম্পিয়নদের রুখতে অতিরক্ষণাত্মক কৌশল বুলগেরিয়ার। যদিও তাতে খুব একটা লাভ হয়নি। ডিফেন্সের ফাক গলে ঠিকই বারবার ডি বক্সে আসতে থাকে আজ্জুরিরা।
মানচিনির দল ফল পেয়ে যায় দ্রুতই। সিরো ইম্মোবিলের সঙ্গে বোঝাপড়ায় য়্যুভেন্তাস উইঙ্গার ফেডেরিকো কিয়েসা করেন দারুণ এক গোল। লিড পেতে ইউরো চ্যাম্পিয়নদের অপেক্ষা মাত্র ১৬ মিনিটের।  

এক গোল দিয়ে সন্তুষ্ট ছিলো না ইতালি। লিড বাড়ানো চেষ্টা করলেও, সেগুলো বিফলেই যায়। উল্টো বিরতিতে যাবার আগে আচমকা আক্রমণে সমতা আনে বুলগেরিয়া। ডন্নারুম্মাকে বোকা বানিয়ে গোল করেন আতানাস।

দ্বিতীয়ার্ধ্বেও স্কোর লাইনে কোনো পরিবর্তন আসেনি। পুরো ম্যাচে প্রতিপক্ষের পোস্টে ২৭ শট আর বলের প্রায় ৮০ শতাংশ দখল নিজেদের কাছে রাখাটা বৃথাই যায় ইতালির। ইউরো জয়ের পর প্রথম ম্যাচেই হোঁচট খায় রবার্তো মানচিনির দল।  আন্তর্জাতিক ম্যাচে অপরাজিত থাকার রেকর্ডটা ৩৫ এ নিয়ে যাওয়াটাই কেবল স্বস্তি ইতালির।

পাঠকের মন্তব্য